অশ্বগন্ধার উপকারিতা

অশ্বগন্ধার উপকারিতা

হেলথ টিপস

আপনি কি জানেন অশ্বগন্ধা সম্পর্কে? অশ্বগন্ধা একটি মূল্যবান ভেষজ উদ্ভিদ। অশ্বগন্ধার উপকারিতা বলে শেষ করা মুশকিল। অশ্বগন্ধা খুব ছোট শক্ত কাটা বিশিষ্ট, খাড়াও শাখা-প্রশাখা বিশিষ্ট একটি গাছ। অশ্বগন্ধা হচ্ছে অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ আয়ুর্বেদিক ভেষজ। চিকিৎসা শাস্ত্রে এটিকে আশ্চর্য ভেষজ বা অ্যাডাপ্টোজেন (মানসিক চাপ মুক্তির) জাদুকর বলে পরিচিত রয়েছে।

অশ্বগন্ধা নামটি এসেছে অশ্ব বা ঘোড়া থেকে এবং গন্ধ এসেছে গন্ধা থেকে। অশ্বগন্ধা গাছের পাতা সিদ্ধ করলে ঘোড়ার মূত্রের মত  গন্ধ বের হয় এজন্য এটিকে অশ্বগন্ধা বলে ডাকা হয়।

অশ্বগন্ধার বৈজ্ঞানিক নাম উইথানিয়া সমনিফেরা (Withania Somnifera)

অশ্বগন্ধা গাছের এত বেশি উপকারিতা রয়েছে যে, যার কারনে অশ্বগন্ধা গাছের পাতা, মূল, ছাল, বাকল, ফুল-ফল সবই ঔষধি হিসেবে ব্যবহার করা হয়।

অশ্বগন্ধা গাছ চেনার উপায়

অশ্বগন্ধা গাছ দুই ধরনের রয়েছে। একটি জঙ্গলি অশ্বগন্ধা আর অন্যটি হচ্ছে সাধারন অশ্বগন্ধা। সবাই সাধারণ অশ্বগন্ধা ঔষধ হিসেবে ব্যবহার করে। জঙ্গলি অশ্বগন্ধার পাতা মোটা ধরনের হয়। আর সাধারণ অশ্বগন্ধার পাতা নরম ও পাতলা হয়। আর ফল লাল চেরির মত। ফলে সঠিক অশ্বগন্ধার ব্যবহার করলে ভালো ফলাফল পাওয়া যায়।

অশ্বগন্ধার উপকারিতা

মানসিক চাপ কম করার খাতি থাকলেও অশ্বগন্ধার বিভিন্ন ধরনের উপকারিতা রয়েছে। অশ্বগন্ধার এত বেশি উপকারিতা রয়েছে যা বলে শেষ করা যাবে না। তা সত্ত্বেও নিচে কয়েকটি উপকারীতা তুলে ধরা হলোঃ

কোলেস্টেরল দূর করে

আয়ুর্বেদ এর মতে অশ্বগন্ধা শরীরের ক্ষতিকর কোলেস্টেরলের মাত্রা কমিয়ে পেশীর শক্তি বাড়াতে সাহায্য করে।

ক্যান্সার প্রতিরোধ

অশ্বগন্ধা ক্যান্সার প্রতিরোধে সাহায্য করে।যারা ক্যান্সারের জন্য কেমোথেরাপি দেয় তাদের শরীরের উন্নতির জন্য অশ্বগন্ধা কার্যকর।

অনিদ্রা ও মানসিক চাপ নিয়ন্ত্রণ

অশ্বগন্ধা মানুষের ক্লান্তি দূর করতে সাহায্য করে এর ফলে ঘুম হয় ভালো।যা অনিদ্রা দূর করতে সাহায্য করে। অশ্বগন্ধার মানসিক চাপ কম করার যাদুকরী গুন রয়েছে। অশ্বগন্ধার অ্যানজাইলটিক উপাদান মানসিক চাপ কমাতে সক্ষম এজন্য অশ্বগন্ধা মানসিক চাপ নিয়ন্ত্রণ করতে খুবই ভাল কার্যকরী।

রোগ প্রতিরোধ

অশ্বগন্ধা তে প্রচুর পরিমাণ অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট রয়েছে। যা রোগ প্রতিরোধ বাড়াতে সাহায্য করে।

যৌন ক্ষমতা বাড়ায়

অশ্বগন্ধা পুরুষের ও মহিলাদের যৌন ক্ষমতা বৃদ্ধি করে। পুরুষদের ক্ষেত্রে অশ্বগন্ধা স্বপ্নদোষ এর সমস্যা দূর করে এবং শুক্রাণু বৃদ্ধিতে সাহায্য করে।

ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণ

অশ্বগন্ধার মূল পাতার রসে আন্টি ডায়াবেটিক উপাদান আছে যা ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে সাহায্য করে এবং রোগীর দেহে ইনসুলিনের পরিমাণ বাড়াতে সাহায্য করে।

ত্বকের ক্ষত দূর করে

অশ্বগন্ধার প্রলেপ ত্বকের ক্ষত স্থানে দিলে ক্ষত খুবই দ্রুত সেরে ওঠে। এজন্য অশ্বগন্ধা কে আশ্চর্য ভেষজ বলা হয়।

ত্বকের যত্নে

ত্বকে বার্ধক্যের ছাপ পড়তে দেয় না। অশ্বগন্ধা গাছের নির্যাস ত্বককে উজ্জ্বল ও সুন্দর করে  তুলতে অশ্বগন্ধার জুড়ি মেলা ভার। ত্বকের ইনফেকশন দূর করতেও অশ্বগন্ধা খুবই কার্যকর।

গরমকালে ত্বকের যত্ন নেওয়ার ১০ টি টিপস পাবেন এই লিংকে

চুলের যত্নে

অশ্বগন্ধা চুল পড়া কমাতে সাহায্য করে। চুলের খুশকি ও চুল পাকা রোধ করে এবং চুলকে স্বাস্থ্যকর ও ঝলমলে করে তোলে।

উচ্চ রক্তচাপ

যাদের উচ্চ রক্তচাপ রয়েছে তাদের অবশ্যই অশ্বগন্ধার ব্যবহার করা উচিত। অশ্বগন্ধা ব্যবহারে রক্তের চাপ কম হয়।

হৃদ রোগ সমস্যা

অশ্বগন্ধা হার্টের বেশি শক্তিশালী করে এবং হূদযন্ত্রের সামগ্রিক ক্ষমতা বৃদ্ধি করে। যার ফলে রক্ত জমাট হয়না। রক্ত সঠিকভাবে চলাচল করে হৃদ রোগের প্রবণতা কম করে।

থাইরয়েড

অশ্বগন্ধা থাইরয়েড সমস্যায় একটি কার্যকরী টনিক হিসেবে পরিচিত। যাদের শরীরে থাইরয়েড হরমোন কম তাদের থাইরয়েড প্রক্রিয়া বৃদ্ধি করে।

বাতের ব্যথা ও শরীর ফোলা

অশ্বগন্ধা এমন একটি ভেষজ ঔষধ।  যেটা বাতের ব্যথা রোগীদের জন্য অনেক কার্যকর। এবং যাদের শরীর ফুলে যায় এই ফোলা কমাতেও সাহায্য করে।

সর্দি কাশি দূর করে

অশ্বগন্ধার চা খেলে সর্দি-কাশি এক নিমিষেই ভালো হয়। অশ্বগন্ধা ঠান্ডার জন্য বিশেষ উপকারী।

গ্যাস্ট্রিক আলসার

বেশিরভাগ মানুষেরই এসিডিটি বা গ্যাসের সমস্যা রয়েছে। আলসারের জন্য পেট ব্যথা করে। অনেকের পেট ফাঁপা বা বদহজম হয় তাদের জন্য অশ্বগন্ধার ফল খুব উপকারী।

ক্রনিক ব্রংকাইটিস

যারা ক্রনিক ব্রংকাইটিস এর রোগী তারা অশ্বগন্ধার ব্যবহার করতে পারেন. অশ্বগন্ধার মূল পুড়িয়ে মধু দিয়ে খেলে ক্রনিক ব্রংকাইটিস খুব ভালো উপকার হয়।

চোখের ব্যথা

অশ্বগন্ধা চোখের চিকিৎসায় ব্যবহৃত হয়। চোখের ব্যথা কমাতে অশ্বগন্ধা বিশেষ উপকারী।

স্মৃতিশক্তি বৃদ্ধি

অশ্বগন্ধা স্মৃতিশক্তি বৃদ্ধি করতে সাহায্য করে। অনেক মানুষের রোগ রয়েছে স্মৃতিশক্তি হারিয়ে ফেলে তাদের জন্য কার্যকরী ঔষধ হচ্ছে অশ্বগন্ধা।

বন্ধ্যাত্ব নারী

বন্ধ্যাত্ব নারীদের জন্য অশ্বগন্ধা খুবই উপকারী। এই অশ্বগন্ধা নারীদের বন্ধ্যাত্ব ঘুচিয়ে  দেয়।

সাপের কামড়

যে স্থানে সাপ কামড় দেয় সেই ক্ষত স্থানে অশ্বগন্ধার প্রলেপ লাগালে বিষ পড়ে এবং প্রশমিত হয় শরীরের অন্যকোথাও আর ছড়ায় না।

পরিশেষে বলা হয়েছে, অশ্বগন্ধার যেমন উপকারিতা রয়েছে তেমনি  অশ্বগন্ধার ক্ষতিকর দিক আছে। এজন্য অবশ্যই অশ্বগন্ধা সেবন করার আগে ডাক্তারের পরামর্শ নিতে হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.